রোহিঙ্গা নির্যাতনে রাবির বিএনপি-জামায়াতপন্থী শিক্ষকদের নিন্দা


Published: 2017-09-11 18:59:27 BdST, Updated: 2017-09-22 23:09:37 BdST


রাবি লাইভ: মায়ানমারে সংখ্যালঘু মুসলিমদের নির্বিচারে হত্যা, ধর্ষণ ও নির্মম নিপীড়নের ঘটনার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে বিবৃতি দিয়েছে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলাদেশী জাতীয়তাবাদ ও ইসলামী মূল্যবোধে বিশ্বাসী শিক্ষক গ্রুপ (সাদা দল)।

সোমবার বিকেলে সাদা দলের ভারপ্রাপ্ত আহবায়ক প্রফেসর ড. মোহা. এনামুল হক স্বাক্ষরিত এক বিবৃতিতে এই প্রতিবাদ জানানো হয়।

বিবৃতিতে বলা হয়, মায়ানমার সরকার রোহিঙ্গাদের উপর যে জাতিগত নিধনযজ্ঞ চালাচ্ছে তা কল্পণাকেও হার মানিয়েছে। মগ দস্যুরা সেখানে যে বিভীষিকাময় পরিস্থিতির সৃষ্টি করেছে তা গোটা মানবজাতির জন্য লজ্জাকর। মানবতা আজ সেখানে পরাজিত হয়েছে। অবিলম্বে রোহিঙ্গা গণহত্যা বন্ধে মায়ানমারের নিপীড়ক শাসকগোষ্ঠিকে বাধ্য করতে জাতিসংঘ, ও আইসি সহ বিশ্বসংস্থাগুলোর প্রতি উদাত্ত্ব আহবান জানান শিক্ষকবৃন্দ।

বিবৃতিতে ক্ষোভ প্রকাশ করে বলা হয়েছে, ‘বিশ্বমোড়লরা সন্ত্রাসবাদের বিরুদ্ধে যুদ্ধের নামে জনপদের পদ জনপদ বিরাণভূমিতে পরিণত করলেও মায়ানমারের ব্যাপারে তাদের রহস্যজনক ভূমিকায় বিশ্ববাসী হতবাক হয়েছে।’

মায়ানমার থেকে বিতাড়িত চরম নিপীড়িত, স্বজনহীন, সহায়-সম্বলহীন রোহিঙ্গাদের আশ্রয়ের স্বার্থে সীমান্ত খুলে দেয়া এবং তাদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করার জন্য বাংলাদেশ সরকারের প্রতি দাবী জানিয়ে সাদা দলের নেতৃবৃন্দ বলেন, ‘ঐতিহাসিকভাবেই বাংলাদেশের জনগণ অসহায়-নিপীড়িত জনতার পাশে অবস্থান নিয়ে আসছে। প্রতিবেশী নির্যাতিত এ জনগোষ্ঠীর জন্য আমাদের অনেক কিছুই করার আছে।

দেশের বিভিন্ন স্থানে রোহিঙ্গাদের প্রতি একাত্মতা জানিয়ে গ্রহণ করা নানা ধরনের শান্তিপূর্ণ কর্মসূচি সরকারী পেটোয়াবাহিনী দিয়ে প- করার তীব্র নিন্দা জানিয়ে শিক্ষক নেতৃবৃন্দ আরও বলেন: এর মাধ্যমে প্রকারান্তরে সরকার নিপীড়ক জালিমদের পক্ষাবলম্বন করেছে এবং তাদের ফ্যাসিষ্টরূপ প্রকাশিত হয়েছে।

বিবৃতিতে স্বক্ষরকারী শিক্ষকবৃন্দের মধ্যে রয়েছেন, প্রফেসর ড. মামুনুল কেরামত, প্রফেসর ড. মো. শামসুল আলম সরকার, প্রফেসর ড. আফরাউজ্জামান খান চৌধুরী, প্রফেসর ড. সি. এম. মোস্তফা, প্রফেসর ড. কে বি এম মাহবুবুর রহমান, প্রফেসর ড. মো. আমজাদ হোসেন, প্রফেসর ড. এ. বি. এম. শাহজাহান, প্রফেসর ড. ময়েজুল ইসলাম, প্রফেসর ড. এফএমএ এইচ তাকী, প্রফেসর ড. মো. বেলাল হোসেন, প্র্রফেসর ড. মো. সাইফুল ইসলাম ফারুকী, প্রফেসর ড. মো. ফরিদুল ইসলাম, প্রফেসর ড. মোস্তফা কামাল আকন্দ, প্রফেসর ড. গোলাম সাদিক, প্রফেসর ড.দিল আরা হোসেন, প্রফেসর ড. আব্দুল হান্নান, প্রফেসর ড. মো. মামুন-উর-রশীদ, প্রফেসর ড. আমিনুল হক, প্রফেসর ড. সাইফুল ইসলাম, প্রফেসর ড. শফিকুল ইসলাম, প্রফেসর ড. ইফতিখারুল আলম মাসউদ, ড. মোহাম্মদ আলী , প্রফেসর ড. শাহনাজ পারভীন, প্রফেসর ড. ফারজানা আশরাফী নীলা, প্রফেসর ড. মো. শামসুজ্জোহা এছামী, প্রফেসর ড. মো. আব্দুল আলীম, প্রফেসর ড. আমীরুল ইসলাম, প্রফেসর ড. কুদরত-ই-জাহান, মিসেস লাভলী নাহার, প্রফেসর ড. ফাহমিদা চৌধুরী, ড. শামীমা নাসরীন সীমা প্রমূখ।

 

ঢাকা, ১১ সেপ্টেম্বর (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//এমএইচ

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।