প্রাথমিকে বৃত্তি পেয়েছে ৮২ হাজার ৫০০ শিক্ষার্থী


Published: 2017-04-11 17:57:06 BdST, Updated: 2017-09-24 12:49:22 BdST



লাইভ প্রতিবেদক: প্রাথমিক বৃত্তির ফল প্রকাশ করা হয়েছে। প্রাথমিক সমাপনীর ফলাফলের ভিত্তিতে এবার ৮২ হাজার ৫০০ জন বৃত্তি পেয়েছে।

এদের মধ্যে ট্যালেন্টপুলে ৩৩ হাজার ও সাধারণ বৃত্তি পেয়েছে ৪৯ হাজার ৫০০ জন শিক্ষার্থী।

সচিবালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে মঙ্গলবার (১১ এপ্রিল) প্রাথমিক ও গণশিক্ষামন্ত্রী মোস্তাফিজুর রহমান ফিজার বৃত্তির ফল ঘোষণা করেন।

মন্ত্রী বলেন, প্রাথমিক সমাপনী পরীক্ষার মাধ্যমে ৫৫ হাজার শিক্ষার্থীদের বৃত্তি দেওয়া হতো। ২০১৫ সাল থেকে এ সংখ্যা বাড়িয়ে ৮২ হাজার ৫০০ করা হয়েছে।

মোস্তাফিজুর রহমান জানান, এবার ট্যালেন্টপুলে (মেধাবৃত্তি) ৩৩ হাজার ও ৪৯ হাজার ৫০০ জন শিক্ষার্থী সাধারণ বৃত্তি পেয়েছে।

সাধারণ কোটায় ইউনিয়ন বা পৌরসভার ওয়ার্ড, উপজেলা বা থানা ও বিভাগ পর্যায়ে বৃত্তি বণ্টনের পর ৪১টি বৃত্তি অবশিষ্ট রয়ে গেছে বলেও জানান তিনি।

মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, ‘বর্তমানে সাধারণ কোটায় বৃত্তির সংখ্যা ৫০০। সেই হিসাবে মোট ৭ হাজার ৯৮৬ ইউনিয়ন বা পৌরসভার ওয়ার্ডের প্রতিটিতে ছয়টি করে (৩ জন ছাত্র ও ৩ জন ছাত্রী) ৪৭ হাজার ৬৭৬টি সাধারণ বৃত্তি দেওয়া হয়েছে। বাকি এক হাজার ৮২৪টি বৃত্তি থেকে প্রতিটি উপজেলা বা থানা থেকে আরও তিনটি করে ৫০৯টি উপজেলা বা থানায় এক হাজার ৫২৭টি সাধারণ বৃত্তি দেওয়া হয়েছে। সাধারণ বৃত্তি থেকে প্রতিটি জেলায় আরও চারটি করে ৬৪ জেলায় আরও ২৫৬টি বৃত্তি বণ্টন করা হয়েছে।’

তিনি বলেন, ‘ঝড়ে পড়া রোধ, শ্রেণি কক্ষে শিক্ষার্থীদের উপস্থিতি বৃদ্ধি, সুষম মেধা বিকাশের লক্ষ্যে শিক্ষার্থীদের প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনীর পরীক্ষার ফলের ভিত্তিতে শিক্ষার্থীদের বৃত্তি দেওয়া হয়। সব শিক্ষার্থী এই প্রতিযোগীতায় অংশ নিতে পারে।’

প্রাথমিক বৃত্তির ফলাফল প্রাথমিক শিক্ষা অধিদফতরের ওয়েবসাইট (www.dpe.gov.bd) থেকে সংগ্রহ করা যাবে বলেও জানান মন্ত্রী।


সংবাদ সম্মেলনে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা সচিব আসিফ-উজ-জামান, প্রাথমিক শিক্ষা অধিদফতরের মহাপরিচালক মো. আবু হেনা মোস্তফা কামালসহ মন্ত্রণালয়ের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

 

ঢাকা, ১১ এপ্রিল (ক্যাম্পাসলাইভ২৪.কম)//এমএইচ

ক্যাম্পাসলাইভ২৪ডটকম-এ (campuslive24.com) প্রচারিত/প্রকাশিত যে কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা আইনত অপরাধ।